ক্রমশ সুস্থ হচ্ছে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনার দৈনিক সংক্রমণ অনেকটাই কমল

ক্রমশ সুস্থ হচ্ছে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনার দৈনিক সংক্রমণ অনেকটাই কমল
ক্রমশ সুস্থ হচ্ছে বাংলা! গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনার দৈনিক সংক্রমণ অনেকটাই কমল / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ রাজ্যে কড়া বিধিনিষেধ জারির সুফল মিলছে। ক্রমশ সুস্থতার পথে এগিয়ে চলেছে বাংলা। স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান থেকেই তা স্পষ্ট। ভোটের আবহে এপ্রিল-মে মাসে ঝড়ের গতিতে রাজ্যে বাড়ছিল করোনার সংক্রমণ। তারপর ধীরে ধীরে তা কমতে শুরু করে। তবে, রাজ্যে করোনার দৈনিক সংক্রমণে এবং মৃত্যুর সংখ্যায় ওঠানামা অব্যাহত। গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনার দৈনিক সংক্রমণ ফের অনেকটাই কমেছে। সামান্য বাড়ল মৃত্যুর সংখ্যা।

রাজ্য স্বাস্থ্য দফতরের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৬৬৬ জন। যা গতকাল অর্থাৎ রবিবারের থেকে অনেকটাই কম। গতকাল রাজ্যে করোনার দৈনিক আক্রান্তের সংখ্যা ছিল ৮০১ জন। সংক্রমণের নিরিখে ফের প্রথম স্থানে উঠে এসেছে উত্তর ২৪ পরগণা জেলা। গত ২৪ ঘণ্টায় এই জেলায় নতুন করে আক্রান্ত হয়েছেন ৯৩ জন। দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে কলকাতা। একদিনে এই জেলাতে নতুন করে করোনা আক্রান্ত হয়েছেন ৫৩ জন। তৃতীয় স্থানে রয়েছে দার্জিলিং। সেখানে নতুন করে গত ২৪ ঘণ্টায় আক্রান্ত হয়েছেন ৪৯ জন। উল্লেখ্য, কয়েকদিন ধরেই দার্জিলিং-এর করোনার দৈনিক সংক্রমণ চিন্তা বাড়াচ্ছিল। তাই পর্যটকদের উপর কড়া বিধিনিষেধ চাপানো হয়েছিল। যার জেরে অনেকটাই কমল সংক্রমণ। তাছাড়া বাকি সব জেলা থেকেই এদিন কমবেশি নতুন করোনা আক্রান্তের হদিশ মিলেছে। নিম্নমুখী উত্তরবঙ্গের সংক্রমণও।  ফলে, রাজ্যে মোট আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে হয়েছে ১৫ লক্ষ ১৮ হাজার ৮৪৭ জন।

অন্যদিকে স্বাস্থ্য দফতরের রিপোর্ট অনুযায়ী, গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্যে করোনায় মৃত্যু হয়েছে ১২ জনের। গত ২৪ ঘণ্টায় দার্জিলিং এবং পশ্চিম মেদিনীপুর এইই দুই জেলায় করোনায় ৩ জন করে প্রাণ হারিয়েছেন। আর উত্তর ২৪ পরগণায় ২ জনের করোনায় মৃত্যু  হয়েছে। তবে,  গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় মৃত্যু নেই কলকাতায়। রাজ্যে করোনা বিধিনিষেধ শিথিল হওয়ার পরেও, এই পরিসংখ্যান নিঃসন্দেহে স্বাস্থ্য দফতরকে স্বস্তি দিচ্ছে। তবে, শুধু কলকাতাই নয়, বেশ কিছু জেলায় গত ২৪ ঘণ্টায় কোনও মৃত্যু নেই।  সবমিলিয়ে গোটা রাজ্যে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ১৮ হাজার ১১ জন।

এদিকে গত ২৪ ঘণ্টায় রাজ্য করোনাকে পরাস্ত করে সুস্থ হয়ে ঘরে ফিরেছেন ১ হাজার ৬ জন। যা দৈনিক আক্রান্তের চেয়ে অনেকটাই বেশি। রাজ্যে এখনও পর্যন্ত করোনাকে পরাস্ত করে সুস্থ হয়ে ঘরে ফিরেছেন ১৪ লক্ষ ৮৮ হাজার ৭৭ জন। রাজ্যের সুস্থতার হার বেড়ে দাঁড়াল ৯৭.৯৭ শতাংশ।