প্রাক্তন কাউন্সিলরের ছেলের বিরুদ্ধে মার্চ পিটিশন জমা পড়ল থানায় , কেন জানুন

নিজস্ব প্রতিবেদনঃ নদীয়াঃ ১৭০ জনের মার্চ পিটিশন জমা পড়লো নদীয়ার শান্তিপুরে ৫ নম্বর ওয়ার্ডের প্রাক্তন কাউন্সিলর মাধব সরকারের দুই ছেলে মনোজ সরকার এবং মনি সরকার ও তার কয়েকজন বন্ধুদের বিরুদ্ধে।গৃহবধূদের শ্যামলী পাল জানান গত বৃহস্পতিবার মনোজ সরকার ও তার সহযোগীরা গাছ কাটতে আসলে বাধা দেয় এলাকাবাসী। তখনই হুমকি দেয় বোম মেরে পাড়া, বারোয়ারী উড়িয়ে দেবো। সেই অনুযায়ী সারাদিন শান্তিপুর শহরের বিভিন্ন প্রান্তের অসামাজিক বিভিন্ন কাজ কর্মের সাথে যুক্ত কিছু দুষ্কৃতী মদ খেয়ে বিবস্ত্র হয়ে মহিলাদের প্রতি অশালীন আচরণ এবং অশ্লীল কথাবার্তা বলতে থাকে।

ওই এলাকার সারাগড় শীতলাতলা বারোয়ারির সংলগ্ন এলাকায় মুখার্জির বাগান নামে একটি আম বাগানে দীর্ঘদিন ধরে গাছ কেটে ফাঁকা করে দিচ্ছে কাউন্সিলারের ছেলেরা। তোলাবাজি ধর্ষণ সহ একাধিক অভিযোগ তাদের নামে। অথচ প্রশাসন নির্বিকার বলে অভিযোগ তুলল সারাগর শীতলাতলা বারোয়ারির সভাপতি লক্ষণ পাল।বারোয়ারি সম্পাদক বিকাশ পাল জানান এর আগেও থানা থেকে ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে গুলি চলেছিলো কদিন আগে, গতকাল রাতে এতগুলো বোম পড়লো আমরা প্রতিবাদ করছি।

এতগুলো পরিবার কিছু নেতারুপী সমাজবিরোধীর অত্যাচারে প্রকাশ্যে কমপ্লেন নয, মার্চ পিটিশন জমা করেছি।তবে এ বিষয়ে কাউন্সিলরের ছেলে মনোজ সরকার জানান ওই এলাকারই জয়দেব বিশ্বাস আমাদের নিজস্ব বাগান হওয়া সত্ত্বেও ১০ লক্ষ টাকা দাবি করে, তারাই চক্রান্ত করে এ ধরনের অশান্তি করছে এলাকায়।মনি সরকার জানান অসুস্থ বাবার চিকিৎসা করাতে কলকাতা রয়েছি দুই ভাই। কে বা কারা এ ঘটনা ঘটিয়েছে জানিনা।ওই বাগান আমাদের কেনা জায়গা তাই গাছ কাটার কোন প্রশ্নই ওঠে না।

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.