মাস্ক পরে ঘোরার উপকারিতা গুলি জানেন কি! জেনে নিন এখনই

মাস্ক পরে ঘোরার উপকারিতা গুলি জানেন কি! জেনে নিন এখনই
মাস্ক পরে ঘোরার উপকারিতা গুলি জানেন কি! জেনে নিন এখনই

প্রথমেই বলে যায় মাস্ক পরলে ভাইরাসে সংক্রমিত হওয়ার সম্ভাবনা হ্রাস পায়, একইসঙ্গে আরও একটি উপকার হয়। শ্বাস নেওয়ার সময় যে বাতাস আমাদের ফুসফুসে প্রবেশ করে, তাতে আর্দ্রতা বাড়িয়ে তোলে মাস্ক। যেটি বেশ উপকারি।

‘বায়োফিজিক্যাল জার্নালে’ এই সংক্রান্ত একটি সমীক্ষাও প্রকাশিত হয়েছে। যে টিমটি এই গবেষণা করেছে তার শীর্ষে রয়েছেন, ন্যাশনাল ইনস্টিটিউট অফ ডায়াবিটিজ অ্যান্ড ডাইজেস্টিভ অ্যান্ড কিডনি ডিজিজের গবেষক অ্যাড্রিয়ান বক্স।

সমীক্ষা থেকে জানা যায়, শ্বাসনালীর হাইড্রেশন প্রক্রিয়া শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে বিশেষ ভূমিকা নিয়ে থাকে। এবং সেই হাইড্রেশন প্রক্রিয়ায় বিশেষভাবে সহায়তা করে আর্দ্রতাযুক্ত শ্বাস। যে বাতাস যত বেশি আর্দ্র হবে তার হাইড্রেশন প্রক্রিয়ার পাশে থাকার ক্ষমতাও বেশি হবে। অর্থাৎ কোভিডে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা তাঁদের অনেক কম হয়ে যায়, যাঁদের ফুসফুসে আর্দ্রতাযুক্ত বাতাস বেশি প্রবেশ করছে।

আরও জানা যায়, সংক্রমণ ও ফ্লুয়ের তীব্রতা কমাতে উচ্চস্তরের আর্দ্রতা অনেকাংশে সাহায্য করে থাকে। এবং একই ধরনের পদ্ধতিতে কমতে পারে কোভিড ১৯-এর সংক্রমণ।

আর্দ্রতার পরিমাণ বেশি হলে ফুসফুসে ভাইরাসের বিস্তারও ধীরে ধীরে বাধাপ্রাপ্ত হয়। চিকিৎসার পরিভাষায় এর নাম হলো মিইকোসিলিয়ারি ক্লিয়ারেন্স (MCC)। এর ফলে ফুসফুসের শ্লেষ্মা মুক্তি ঘটে। এছাড়াও ক্ষতিকারক আরও নানা উপাদানের প্রভাব থেকে স্বস্তি পায় ফুসফুস।