বড় ঘোষণা শিক্ষামন্ত্রীর! পুজোর আগেই প্রাথমিকে নিয়োগ হতে চলেছে এতো সংখ্যক শিক্ষক

বড় ঘোষণা শিক্ষামন্ত্রীর! পুজোর আগেই প্রাথমিকে নিয়োগ হতে চলেছে এতো সংখ্যক শিক্ষক
বড় ঘোষণা শিক্ষামন্ত্রীর! পুজোর আগেই প্রাথমিকে নিয়োগ হতে চলেছে এতো সংখ্যক শিক্ষক

বংনিউজ ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ আজ প্রাথমিকে শিক্ষক নিয়োগ নিয়ে বড় ঘোষণা করলেন রাজ্যের শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু। পুজোর আগেই প্রাথমিকে ১০ হাজার ৫০০ জন শিক্ষক নিয়োগ হবে রাজ্যে। শুক্রবার সাংবাদিক সম্মেলন করে এমনটাই জানালেন শিক্ষামন্ত্রী ব্রাত্য বসু। পাশাপাশি এও ঘোষণা হয়েছে, করোনাবিধি মেনেই ১৯ জুলাই থেকে শুরু হবে উচ্চ প্রাথমিকে নিয়োগের ইন্টারভিউ পর্বও।

স্কুল শিক্ষা দফতর সূত্রে জানা গিয়েছে, পুজোর আগে মোট ১০ হাজার ৫০০ শূন্যপদে শিক্ষক নেওয়া হবে। জানা গিয়েছে, ২০১৪ সালের টেট পরীক্ষায় উত্তীর্ণ ৩১ হাজার ৫০০ জনের মধ্যে থেকে ১০ হাজার ৫০০ জনকে নিয়োগ করা হবে। সেই সংক্রান্ত বিজ্ঞপ্তিও জারি করা হবে। তবে, এখনও এটা স্পষ্ট নয় যে, বর্তমান করোনা পরিস্থিতিতে অফলাইন না অনলাইন, কোন পদ্ধতিতে কাউন্সেলিং হবে চাকুরিপ্রার্থীদের।

উল্লেখ্য, চলতি বছরের ২৯ জুন প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদের সভাপতি মানিক ভট্টাচার্য জানিয়েছিলেন, পুজোর আগেই প্রাথমিকের টেট- এর ফলপ্রকাশ করা হবে। তিনি বলেছিলেন, ‘চলতি বছরের ৩১ জানুয়ারি প্রাথমিকের টেট নেওয়া হয়েছিল। পুজোর আগেই তার ফলপ্রকাশ করা হবে।’ টেট দিয়েছিলেন প্রায় আড়াই লক্ষ পরীক্ষার্থী। জানা গিয়েছে, এবারের প্রাথমিকে টেটের ফলপ্রকাশ নিয়ে যথেষ্ট সতর্ক প্রাথমিক শিক্ষা পর্ষদ। ফলপ্রকাশের আগেই মডেল উত্তরপত্র ওয়েবসাইটে আপলোড করা হবে।

প্রসঙ্গত উল্লেখ্য, রাজ্যে বিধানসভা নির্বাচনের আগেই ৫৬৫৬ জনকে নিয়োগপত্র দেওয়া হয়েছিল পর্ষদের পক্ষ থেকে। এরপর রাজ্যে নির্বাচনীবিধি জারি হওয়ায় ১৬,৫০০ শিক্ষক নিয়োগের প্রক্রিয়া থমকে যায়। যদিও, নির্বাচনের আগেই মুখ্যমন্ত্রী ১৬,৫০০ প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের কথা ঘোষণা করেছিলেন। তার মধ্যে অবশ্য ৫১৪৬ জন চাকরিতে যোগ দিয়েছেন ইতিমধ্যেই।