৩১ জুলাই পর্যন্ত রাজ্যে বাড়ল লকডাউন, ছাড় প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে

৩১ জুলাই পর্যন্ত রাজ্যে বাড়ল লকডাউন, ছাড় প্রয়োজনীয় ক্ষেত্রে

এই মুহূর্তে রাজ্যের উদ্যোগ বাড়াচ্ছে করোনা পরিস্থিতি। ফলে লকডাউনের মেয়াদ বাড়াল রাজ্য সরকার। মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন যে নবান্ন সভাঘরে অনুষ্ঠিত সর্বদলীয় বৈঠকে আলোচনায় এক মত হয়েই এই সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। বুধবার বৈঠক শেষে তিনি বলেন, “ যেদিকে পরিস্থিতি যাচ্ছে, আমরা সর্বদলীয় প্রতিনিধিরা আলোচনার ভিত্তিতে এসেই এই প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ নিয়েছি। লকডাউন বাড়ানো হচ্ছে রাজ্যে। তবে আগে যেগুলোতে ছাড় দেওয়া হয়েছিল সেগুলি তেমনই থাকবে। লকডাউনের মেয়াদ আগামী ৩১ জুলাই পর্যন্ত বাড়ানো হচ্ছে”।

উল্লখ্যযোগ্য এর আগে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় রাজ্যে ৩০ জুন পর্যন্ত লকডাউন ঘোষণা করেছিলেন। কিন্তু তার মধ্যে রাজ্যের সরকারী বেসরকারী অফিস, ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান এবং শপিং মলগুলি খুলে দেওয়ার অনুমতি দিয়েছিল সরকার। এমনকী পরিবহণ পরিষেবাও চালু করা হয়েছিল। তবে মেট্রো পরিষেবা বন্ধ রাখা হয়েছে করোনা সংক্রমণের কথা মাথায় রেখেই। এদিন বৈঠক শেষেও সেই কথা বললেন মুখ্যমন্ত্রী। তিনি বলেন, “বৈঠকে উপস্থিত কয়েকজন প্রতিনিধি পরিবহণ ব্যবস্থা নিয়ে সমস্যার কথা জানিয়েছেন। সরকার তার সমাধানের ব্যবস্থা করছে। লকডাউন নিয়ে অনেকেরই মতামত ছিল। কেউ কেউ বলেছেন লকডাউন আরো কড়া হোক। আবার প্রশ্ন তুলেছিলেন কেনো চারদিনে রমাথায় প্রথম লকডাউন করা হয়েছিল। আমি সবকিছুই শুনেছি। তবে ৩১ জুলাই পর্যন্ত লকডাউন বাড়ানো নিয়ে একমত হয়েছি সকলেই”।

লকডাউন বাড়লেও ৩১ জুলাই পর্যন্ত বন্ধ থাকছে সমস্ত স্কুল, কলেজ এবং বিশ্ববিদ্যালয়গুলি। তবে উচ্চমাধ্যমিকের বাকি থাকা পরীক্ষা গুলি আগের নির্ধারিত তারিখে হবে বলে জানিয়েছেন মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। তবে যদি কিছু পরিবর্তন হয় তা আগে থেকেই জানিয়ে দেওয়া হবে বলেও জানান তিনি।

আরও পড়ুনঃ  মুখ্যমন্ত্রীর হুঁশিয়ারিতে বাস মালিকদের সুর নরম, স্বস্তি নিত্য যাত্রীদের

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.