আলোর মালায় সুসজ্জিত হাওড়া ব্রিজ! দেখে মুগ্ধ স্বয়ং নরেন্দ্র মোদি, শেয়ার করলেন ভিডিও

আলোর মালায় সুসজ্জিত হাওড়া ব্রিজ! দেখে মুগ্ধ স্বয়ং নরেন্দ্র মোদি, শেয়ার করলেন ভিডিও
আলোর মালায় সুসজ্জিত হাওড়া ব্রিজ! দেখে মুগ্ধ স্বয়ং নরেন্দ্র মোদি, শেয়ার করলেন ভিডিও

আগামীকাল থেকে শুরু হতে চলেছে টোকিও অলিম্পিক। আর অলিম্পিককে সম্মান জানাতে নতুন আলোকে সেজে উঠল হাওড়া ব্রিজ বা রবীন্দ্র সেতু। দু’দিন আগেই টোকিও অলিম্পিকের জন্যে আলোর মালায় সাজানো হয় হাওড়া ব্রিজকে৷ কলকাতার শ্যামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় বন্দরের আধিকারিকদের উদ্যোগেই এমন আলোকসজ্জায় সেজে উঠেছে ঐতিহ্যশালী এই সেতু। এবার ব্রিজের সেই আলোর মালা দেখে মুগ্ধ হয়ে গেলেন স্বয়ং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। নিজের ফেসবুক পেজে শেয়ার করলেন সেই ভিডিও।

ভিডিওতে, ব্রিজে বিভিন্ন সময় ভিন্ন ভিন্ন আলোরর ঝলক দেখা যাচ্ছে। কখনও অলিম্পিকে অংশগ্রহণকারী দেশগুলো বিভিন্ন প্রতীক ভেসে উঠছে আলোকসজ্জায়; আবার কখনও বিভিন্ন দেশের জাতীয় পতাকা। সঙ্গে জাপানের পতাকা ও প্রতীকও আলাদা ভাবে ফুটে উঠছে। ভারতীয় ক্রীড়াবিদদের উৎসাহ দিতে দেশের জাতীয় পতাকাও দেখা যাবে ব্রিজের আলোয়। এই ধরনের আলোকসজ্জাকে টেকনিক্যালি বলা হয়ে থাকে ‘ডায়নামিক আর্কিটেকচার অফ লাইটিং’। এর আগেও বহুবার বিভিন্ন অনুষ্ঠানের প্রেক্ষিতে আলোয় সেজে উঠেছিল হাওড়া ব্রিজ।

ফেসবুকে নিজের পেজে এই ভিডিও শেয়ার করে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন, “কলকাতার হাওড়াব্রিজ, সবসময়ের মতো আজকেও অপরূপ সুন্দর দেখাচ্ছে। এই বার্তা দিচ্ছে যে #চিয়ারফরইন্ডিয়া।” প্রসঙ্গত, গত বছর ১১ জানুয়ারি হাওড়া ব্রিজের নতুন আলোকসজ্জা ব্যবস্থার উদ্বোধন করছিলেন প্রধানমন্ত্রী। তারপর থেকে বিশেষ বিশেষ দিনে আলোকসজ্জায় সাজে ব্রিজ। স্বাধীনতা দিবস, প্রজাতন্ত্র দিবস, দুর্গাপুজো, দেওয়ালি, হোলি ইত্যাদি বছরে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে আলোর মালায় সাজিয়ে তোলা হয় ব্রিজকে। এছাড়াও ইন্টারন্যাশনাল ল্যাঙ্গুয়েজ ডে, ওমেন্স ডে, ব্রেস্ট ক্যান্সার অ্যাওয়ারনেস ডে’র মতো আন্তর্জাতিক দিনগুলিতেও আলোয় সাজে হাওড়া ব্রিজ বা রবীন্দ্র সেতু। এবার টোকিও অলিম্পিকের জন্যও সাজানো হল সেতুকে।

এই প্রসঙ্গে বন্দর চেয়ারম্যান বিনীত কুমারের বক্তব্য, টোকিও অলিম্পিক গত বছর হওয়ার কথা থাকলেও কোভিডের কারণে এবছর হবে৷ পাঁচটি মহাদেশের প্রতিযোগীরা সেখানে অংশ নেবেন। তাই বিভিন্ন মহাদেশের প্রতীককে আলোকসজ্জার মাধ্যমে তুলে ধরা হয়েছে। আয়োজক দেশ হিসেবে জাপানের জাতীয় পতাকাও ফুটিয়ে তোলা হয়েছে। এছাড়াও অলিম্পিকের রিংয়ের পাঁচটি রঙে আলো জ্বলবে এবং নিভবে। যতদিন পর্যন্ত অলিম্পিক চলবে, ততদিন এই আলোকসজ্জা থাকবে।