শেষ সাক্ষাৎ! ভিডিও কলে গান গেয়ে করোনা আক্রান্ত মৃত্যুপথযাত্রী মাকে বিদায় জানালেন ছেলে

শেষ সাক্ষাৎ! ভিডিও কলে গান গেয়ে করোনা আক্রান্ত মৃত্যুপথযাত্রী মাকে বিদায় জানালেন ছেলে / প্রতীকী ছবি
শেষ সাক্ষাৎ! ভিডিও কলে গান গেয়ে করোনা আক্রান্ত মৃত্যুপথযাত্রী মাকে বিদায় জানালেন ছেলে / প্রতীকী ছবি

ভীষণ এক ভাইরাস গ্রাস করেছে পৃথিবী। যার ছোঁয়ায় ধ্বংস হয়ে যাচ্ছে মানুষের পর মানুষ। এ রোগ এমনই সংক্রামিত যে মৃত্যুর পর হয়তো পরিবারও শেষ দেখা দেখতে পাচ্ছে না কাউকে। আবার হয়তো শেষকৃত্যের তাড়ায় চোখের জল ফেলার সময়টুকুও মিলছে না। এসবের মধ্যেই সম্প্রতি এক চিকিৎসক জানালেন তাঁর এক অভিজ্ঞতার কথা। যা জেনে বিষন্নতার পরশ ছড়িয়ে পড়েছে সারা নেটমাধ্যমেই।

মা করোনা আক্রান্ত। হাসপাতালের বেডে শুয়েই চালিয়ে যাচ্ছেন লড়াই। এদিকে মৃত্যুপথযাত্রী মায়ের সঙ্গে শেষ সাক্ষাৎ করতে মাকে ভিডিও কল করেন ছেলে। নাহ! তেমন কোনও কথা হয়নি দুজনের। বরং মায়ের জন্য গাইলেন ‘তেরা মুঝসে হ্যায় পেহলে কা নাতা কোই’। চোখের জলে কিশোর কুমারের গান গেয়েই মাকে এরপর শেষ বিদায় জানালেন ছেলে। যা দেখে হাসপাতালের বাকি চিকিৎসক এবং নার্সদেরও ভিজে উঠল চোখ। সম্প্রতি টুইটারের মাধ্যমে নিজের এই বিষাদঘন অভিজ্ঞতার কথা শেয়ার করলেন ডাক্তার দীপশিখা ঘোষ।

ট্যুইটারে তিনি লেখেন, “আজ শিফটের শেষে মরণাপন্ন এক রোগীর পরিবারকে ভিডিও কল করি। আমাদের হাসপাতালে কেউ চাইলে এরকম সাহায্য আমরা করেই থাকি। ওই রোগীর ছেলে আমার থেকে কয়েক মিনিট সময় চেয়ে নেন। তারপর মরণাপন্ন মায়ের জন্য একটি গান গেয়ে শোনান তিনি।” তিনি আরও লেখেন, “উনি ‘তেরা মুঝসে হ্যায় পেহলে কা নাতা কোই’ গানটি করেছিলেন। আমি চুপ করে ফোন ধরে ছেলে আর মায়ের দিকে তাকিয়ে ছিলাম। গোটা ওয়ার্ডে অন্যান্য নার্সরাও নিঃস্তব্ধ হয়ে দাঁড়িয়ে ছিলেন। গান গাইতে গাইতেই কান্নায় ভেঙে পড়েন ছেলে। শেষ পর্যন্ত মায়ের জন্য গানটি শেষ করেন।”

সবশেষে ডাক্তার দীপশিখা এও জানিয়েছেন, গানটি শুনে তাঁদেরও চোখ ভিজে এসেছিল। পাশাপাশি তিনি এও জানান, এই গান তাঁর জীবন বদলে দিয়েছে। এই মুহূর্তটিও তাঁর কাছে চিরস্মরণীয় হয়ে থাকবে। তাঁর এই অভিজ্ঞতার কথা শুনে নেটিজেনরাও বেশ উদ্বেল হয়ে পড়েছেন। মা-ছেলের বিচ্ছেদের এই কাহিনী তাঁদেরও শোকস্তব্ধ করে দিয়েছে।