রবিবার রাতে তিনটি বিক্ষিপ্ত ঘটনায় উত্তপ্ত দুই পরগনা, অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে

রবিবার রাতে তিনটি বিক্ষিপ্ত ঘটনায় উত্তপ্ত দুই পরগনা, অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে
রবিবার রাতে তিনটি বিক্ষিপ্ত ঘটনায় উত্তপ্ত দুই পরগনা, অভিযোগের তির তৃণমূলের দিকে

একুশের নির্বাচনে কোনোভাবেই থামানো যাচ্ছে না রাজনৈতিক হিংসাকে। রবিবার রাতে তিনটি বিচ্ছিন্ন ঘটনায় ফের উত্তপ্ত হয়ে উঠলো উত্তর থেকে দক্ষিণ ২৪ পরগনা। কসবার আনন্দপুর, হাওড়ার বাঁকড়া এবং নৈহাটিতে আক্রান্ত হয়েছেন বিজেপি কর্ম সমর্থকরা।

স্থানীয় সূত্রে খবর রবিবার গভীর রাতে, বিজেপির এক কর্মী সমর্থক কে হুমকি দিয়েছিল তৃণমূলের দুষ্কৃতীরা। এরপরে বাদানুবাদ চরমে উঠলো ওই ব্যক্তিকে গুলি করা হয় বলে অভিযোগ বিজেপি কর্মীদের। এরপরেই আহতকে কল্যাণীর জিএনএম হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। তার অবস্থা আশংকাজনক। যদিও এই অভিযোগ অস্বীকার করেছে তৃণমূল। পাল্টা দাবি, বিসিবি অন্তর্দ্বন্দ্বের জেরেই এই ঘটনা ঘটেছে।

অন্যদিকে হাওড়া বাঁকড়া রাজিব পল্লী এলাকায় তৃণমূল কর্মীরা একজন বিজেপি কর্মী সমর্থকদের উপর হঠাৎ হামলা করে বলে অভিযোগ উঠেছে।

পাশাপাশি, রবিবার রাত সাড়ে আটটার পর উত্তপ্ত হয়ে ওঠে কসবা বিধানসভা কেন্দ্রের অন্তর্গত আনন্দপুর। এক্ষেত্রেও অভিযোগ তৃণমূলের বিরুদ্ধে। বিজেপির কর্মী-সমর্থকেরা অভিযোগ করে জানিয়েছেন, তৃণমূলের আশ্রিত দুষ্কৃতীদের কার্যালয়ে ঢুকে তাণ্ডব চালায়। মহিলাদের করারও চেষ্টা করে তারা। এরপরে দুই তরফের বচসা তুঙ্গে উঠলে তা হাতাহাতি পর্যায় পর্যন্ত পৌঁছায়। গোটা ঘটনার প্রতিবাদে আনন্দপুর থানা ঘেরাও করে বিজেপির কর্মী-সমর্থকেরা।