মঙ্গলবার, ১৭ মে, ২০২২

দীর্ঘ ২৩ বছরের কেরিয়ারে টানলেন ইতি! সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর ঘোষণা হরভজন সিং-এর

০৫:৪৬ পিএম, ডিসেম্বর ২৪, ২০২১

দীর্ঘ ২৩ বছরের কেরিয়ারে টানলেন ইতি! সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর ঘোষণা হরভজন সিং-এর

২৩ বছরের দীর্ঘ ক্রিকেট কেরিয়ারের ইতি টানলেন ভারতীয় অফ স্পিনার হরভজন সিং। শুক্রবার একটি ট্যুইটের মাধ্যমে নিজের অবসরের কথা ঘোষণা করে সব ধরনের ক্রিকেটকে বিদায় জানালেন হরভজন। ভারতের জার্সি গায়ে তাঁকে শেষবার আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলতে দেখা গিয়েছিল ২০১৬ সালে। সংযুক্ত আরব আমিরশাহিতে এশিয়া কাপ টি-২০তে। চলতি বছরে আইপিএলে কলকাতা নাইড রাইডার্সেরও সদস্য ছিলেন ভাজ্জি। তবে আর বাইশগজে বোলিং করতে দেখা যাবে না তাঁকে৷ আসন্ন আইপিএলে কোনও ফ্র‍্যাঞ্চাইজির মেন্টর বা বোলিং কোচ রূপে বরং দেখা যেতে পারে ভারতের অন্যতম সেরা স্পিনারকে।

এদিন ট্যুইটারে ভাজ্জি লিখেছেন, 'সব ভালো জিনিসই একদিন শেষ হয়। আজ আমি ক্রিকেটকে বিদায় জানাচ্ছি। যা আমায় জীবনে সব কিছু দিয়েছে। এই দীর্ঘ ২৩ বছরের ক্রিকেট সফরকে যাঁরা সুন্দর ও স্মরণীয় করে তুলেছেন, তাঁদের সবাইকে অসংখ্য ধন্যবাদ।' একই সঙ্গে ইউটিউবে একটি ভিডিও পোস্ট করেছেন হরভজন। সেই ভিডিওতে তাঁকে বলতে শোনা যায়, "ভারতের জার্সি পরে খেলতে নামাই ছিল সবচেয়ে বড় অনুপ্রেরণা। কিন্তু, একটা সময় আসে যখন জীবনে কিছু কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে হয়। জীবনে এগোতে হয়। গত কয়েক বছর ধরেই আমি একটা ঘোষণা করতে চাইছিলাম। ভাবছিলাম, কবে আপনাদের সঙ্গে এই মুহূর্তটা ভাগ করে নেব। আজ আমি সব ধরনের ক্রিকেট থেকে অবসর নিচ্ছি।"

হরভজন আরও বলেন, "হয়তো অনেকদিন আগেই অবসর নিয়েছিলাম। কিন্তু সরকারি ভাবে ঘোষণা করতে পারিনি। অনেকদিন ধরেই সক্রিয় ক্রিকেট খেলিনি। তবে কলকাতা নাইট রাইডার্সের সঙ্গে আমার দায়বদ্ধতার কারণে আগে এটা ঘোষণা করতে পারিনি। কিন্তু মরসুমের মাঝপথেই আমি অবসরের সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেছিলাম" পাশাপাশি ভাজ্জির আক্ষেপ, "বাকিদের মতো আমিও ভারতের জার্সিতেই অবসর নিতে চেয়েছিলাম। কিন্তু সবার ভাগ্য সমান হয় না। কিন্তু যে দলের হয়েই আজ পর্যন্ত খেলেছি, তাদের হয়ে সব সময় ১০০ শতাংশ দিয়েছি।”

https://twitter.com/harbhajan_singh/status/1474302128311062533?t=MKanyqjE-Ifn7yr_AAn_Nw&s=19

১৯৯৮ সালে বাঙ্গালোরে অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে টেস্টে অভিষেক হয় হরভজনের৷ পরের মাসেই শারজায় নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে এক দিনের ক্রিকেটে অভিষেক করেন তিনি৷ এরপর দু’ধরনের ফর্ম্যাটেই তিনি হয়ে ওঠেন ভারতীয় দলের অবিচ্ছেদ্য অংশ৷ ভারতের হয়ে ১০৩টি টেস্ট, ২৩৬টি ওয়ান ডে ও ২৮টি আন্তর্জাতিক টি-২০ ম্যাচ খেলেছেন হরভজন। টেস্টে ৪১৭টি, ওয়ান ডে ক্রিকেটে ২৬৯টি এবং আন্তর্জাতিক টি-২০ ক্রিকেটে ২৫টি উইকেট নিয়েছেন তিনি। ব্যাট হাতেও ভাজ্জির পারফরম্যান্স বেশ উজ্জ্বল। টেস্টে ২টি সেঞ্চুরি ও ৯টি হাফসেঞ্চুরি-সহ ২২২৪ রান সংগ্রহ করার পাশাপাশি একদিনের ক্রিকেটেও করেছেন ১২৩৭ রান।

এসবের মাঝে জীবনে পিছু ছাড়েনি বিতর্কও। ২০০৭-০৮ সালে অস্ট্রেলিয়া সিরিজে অ্যান্ড্রু সাইমন্ডসের সঙ্গে হরভজনের ঝামেলার কথা আজ বহুল-চর্চিত। ক্রিকেটবিশ্বে ‘মাঙ্কিগেট’ নামে পরিচিত সেই ঘটনা। এরপর ২০০৮ সালে আইপিএল-এর একটি ম্যাচে এস শ্রীসন্থকে চড় মারার অভিযোগও উঠেছিল তাঁর বিরুদ্ধে। সব মিলিয়ে হরভজনের ক্রিকেট কেরিয়ার ছিল বর্ণময়৷ সেই কেরিয়ারকে আজ বিদায় জানিয়ে অবসরের পথে পা বাড়ালেন ভারতের অন্যতম সেরা এই অফ স্পিনার।