প্রায় ১ ঘণ্টা দেরিতে খাবার ডেলিভারি, প্রশ্ন করলে ঘুসি মেরে নাক ফাটিয়ে দিলেন Zomato-র ডেলিভারি বয়

প্রায় ১ ঘণ্টা দেরিতে খাবার ডেলিভারি, প্রশ্ন করলে ঘুসি মেরে নাক ফাটিয়ে দিলেন Zomato-র ডেলিভারি বয়
প্রায় ১ ঘণ্টা দেরিতে খাবার ডেলিভারি, প্রশ্ন করলে ঘুসি মেরে নাক ফাটিয়ে দিলেন Zomato-র ডেলিভারি বয় / ছবি সৌজন্যে- Screengrab from Video Instagrammed By @hiteshachandranee

বংনিউজ২৪x৭ডিজিটাল ডেস্কঃ দু-পাঁচ মিনিট নয়, প্রায় এক ঘণ্টা খাবার পৌঁছাতে দেরি করেছিল Zomato-র ডেলিভারি বয়। এর জন্য গ্রাহক এক তরুণী সে বিষয়ে প্রশ্ন করলে এবং অর্ডার দেওয়া খাবার ফিরিয়ে দিতে চাইলে, ওই ডেলিভারি বয় ঘুষি মেরে ওই তরুণীর নাক ফাটিয়ে দেয়। এই গোটা ঘটনার ভিডিও করে সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করেছেন ওই তরুণী। যা ইতিমধ্যেই ভাইরাল হয়েছে। আর তারপরই নড়েচড়ে বসে Zomato। টুইট করে ক্ষমা চাওয়া হয়েছে Zomato-র পক্ষ থেকে।

আহত ওই তরুণীর নাম চন্দ্রাণী, তিটি বেঙ্গালুরুর বাসিন্দা। জানা গিয়েছে, চন্দ্রাণী Zomato থেকে খাবার অর্ডার করেছিলেন। দুপুর ৩.৩০ নাগাদ খাবার ডেলিভারি হওয়ার কথা ছিল। কিন্তু খাবার আসতে ৪.৩০ হয়ে যায়। এই দীর্ঘ সময়ের বিলম্বের জন্য চন্দ্রাণী Zomato এক্সিকিউটিভের সঙ্গে যোগাযোগ করেন। তিনি দাবি করেন, তাঁর খাবার ফ্রি করে দেওয়া হোক, নয়ত ফিরিয়ে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হোক।

এর মধ্যেই খাবার নিয়ে পৌঁছায় ডেলিভারি বয়। চন্দ্রাণীর অভিযোগ, তিনি পৌঁছেই খুবই অভব্য আচরণ করেন। ডেলিভারি বয়কে দাঁড়াতে বলেন তিনি। সেই সময় ফ্রিতে বা খাবার ফিরিয়ে দেওয়া সম্ভব কিনা সে বিষয়ে কথা বলেছিলেন তিনি। কিন্তু ডেলিভারি বয় দাঁড়াতে রাজি হয়নি এবং খাবার ফিরিয়ে নিয়ে যেতেও চায়নি। এরপরই শুরু হয় তাদের মধ্যে তর্কাতর্কি।

এরপরই ওই ডেলিভারি বয় সোজা চন্দ্রাণীর নাকে ঘুষি মারেন, সঙ্গে সঙ্গে তাঁর নাক দিয়ে গলগল করে রক্ত বেরোতে শুরু করে। জানা গিয়েছে, তাঁর নাকের হাড় ভেঙে গিয়েছে। এর জন্য অপারেশন করতে হয়েছে।

এই ঘটনা প্রসঙ্গে জোম্যাটো জানিয়েছে, ‘এই ঘটনায় আমরা কীভাবে ক্ষমা চাইব বুঝতে পারছি না। আমরা খুবই দুঃখিত। বিশ্বাস করুন, আমাদের খাবার ডেলিভারি ব্যবস্থা এতটাও খারাপ নয়। স্থানীয় পুলিসে জানানো হয়েছে। অপরাধী শাস্তি পাবেন। আপনার চিকিৎসার জন্য যা সহযোগিতার প্রয়োজন zomato করতে প্রস্তুত।’

আপনাদের মতামত জানাতে কমেন্ট করুন.