বৃহস্পতিবার, ০৭ জুলাই, ২০২২

গেম খেলতে দেয়নি, রাগের বশে ছোট ভাইকে খুন করল নাবালক দাদা!

আত্রেয়ী সেন

প্রকাশিত: মে ২৬, ২০২২, ০৯:০৬ পিএম | আপডেট: মে ২৬, ২০২২, ০৯:০৬ পিএম

গেম খেলতে দেয়নি, রাগের বশে ছোট ভাইকে খুন করল নাবালক দাদা!
গেম খেলতে দেয়নি, রাগের বশে ছোট ভাইকে খুন করল নাবালক দাদা! / প্রতীকী ছবি

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ বাড়িতে মোবাইল একটাই, সেটাতেই পালা করে দুই ভাই গেম খেলত। কিন্তু সেটাই বড় বিপদ ডেকে আনল। এতোটাই ভয়ঙ্কর বিপদ যে, এক ভাইয়ের প্রাণটাই অকালে চলে গেল। ১১ বছরের ভাইকে খুন করল ১৬ বছরের দাদা। মর্মান্তিক ঘটনাটি ঘটেছে গুজরাটের আহমেদাবাদে। 

ঘটনাটি ঘটে সোমবার। দুই ভাই মোবাইলে গেম খেলছিল। এদিকে মোবাইল একটাই, আর সেটাই কাল হল। সেই সময়ই দু’জনের মধ্যে ঝামেলা বাঁধে। কিন্তু ছোট ভাই কোনভাবেই মোবাইল দিতে চাইনি দাদাকে। তাতেই রেগে যায় নাবালক দাদা। এতোটাই রেগে যায় যে, মাথায় পাথর দিয়ে আঘাত করে সে। এই আঘাতের কারণে অজ্ঞান হয়ে যায় কিশোরটি। এরপরও থামেনি নাবালক দাদা। এরপর ভাইয়ের পায়ে তার দিয়ে পাথর বেঁধে দেয় দাদা এবং কাছেই একটি কুয়োয় ফেলে দেয় সে। জানা গিয়েছে, গোটা ঘটনা যখন ঘটে, তখন ধারেকাছে কেউ ছিল না। 

পুরো ঘটনা ঘটানোর পর, বাস ধরে রাজস্থানে নিজের আদি বাড়িতে যায় ওই অভিযুক্ত নাবালক। নিজের মা-বাবাকেও ঘটনা সম্পর্কে কিছুই জানায়নি সে। এদিকে, সারাদিন পরে বাড়ি ফিরে দুই ছেলের খজ শুরু করেন তাঁদের বাবা-মা। কোথাও তাঁদের দেখা না পেয়ে, রাজস্থানে খোঁজ করেন তাঁরা। তখন জানতে পারেন যে, সেখানে তাঁদের বড় ছেলে রয়েছে। তাঁকে ফিরিয়ে এনে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই আসল ঘটনা প্রকাশ পায়। অভিযুক্ত নাবালক জানায় যে, সেই ভাইকে খুন করেছে।