বৃহস্পতিবার, ২৬ মে, ২০২২

কেশবের প্রথম জন্মদিন বলে কথা! জমিয়ে সেলিব্রেশন, কোনও খামতি রাখলেন না রাজা-মধুবনী

আত্রেয়ী সেন

প্রকাশিত: এপ্রিল ১০, ২০২২, ১০:৪৬ পিএম | আপডেট: এপ্রিল ১০, ২০২২, ১০:৪৬ পিএম

কেশবের প্রথম জন্মদিন বলে কথা! জমিয়ে সেলিব্রেশন, কোনও খামতি রাখলেন না রাজা-মধুবনী
কেশবের প্রথম জন্মদিন বলে কথা! জমিয়ে সেলিব্রেশন, কোনও খামতি রাখলেন না রাজা-মধুবনী

বংনিউজ২৪x৭ ডিজিটাল ডেস্কঃ সময় যে কোথা থেকে পার হয়ে যায়! দেখতে দেখতে এক বছর পার করে ফেলল বাড়ির সকলের আদরের ছোট্ট কেশব। পরিচয়ে সে ছোট পর্দার জনপ্রিয় অভিনেতা-অভিনেত্রী রাজা-মধুবনীর ছেলে। তবে, সোশ্যাল মিডিয়ায় সে নিজেও যথেষ্ট জনপ্রিয় এর মধ্যেই। এহেন ছোট্ট কেশবের ১ বছরের জন্মদিন পালনে কোনও খামতি রাখলেন না রাজা ও মধুবনী। কেক কাটা থেকে শুরু করে ভগবানের আশীর্বাদ নেওয়া সবই হয়েছে। সোশ্যাল মিডিয়ায় এই জন্মদিন পালনের একাধিক ছবি শেয়ার করেছেন মধুবনী। সেই সব ছবিতেই ফুটে উঠেছে, কীভাবে জমকালোভাবে কেশবের জন্মদিন পালন করা হয়েছে। 

মাঝ রাতেই কাটা হয়েছে কেক, বাড়িও সেজে উঠেছে রকমারি বেলুনে। ব্যাকগ্রাউন্ডে লেখা রয়েছে ‘হ্যাপি বার্থ ডে’। এখানেই কিন্তু শেষ নয়, জন্মদিনের দিন কেশব যেন রীতিমতো হিরো। কেশবের পরনে বাহারি পোশাক সঙ্গে মাথায় ছোট্ট ঝুটি। আবার জন্মদিনের অনেক উপহার তো রয়েইছে। সেখানে হাজির বাবা-মা, দাদু-দিদা, সকলে। মাঝরাতের কেক কাটাতেই শেষ নয়, আরও রয়েছে। এদিন সারাদিন ধরেই চলেছে জন্মদিন উদযাপন। 

সকালে স্নান করে পাঞ্জাবি পরে ঠাকুরের আশীর্বাদ নিতেও সে কিন্তু ভোলেনি। গত বছর এই দিনেই হাসপাতালের বেড থেকে স্ত্রীর ছবি শেয়ার করেছিলেন রাজা। জানিয়েছিলেন, তাঁদের জীবনে সবথেকে বড় খুশির খবর, কেশবের আগমনের খবর। ছেলের নামও অনেক সাধ করেই কেশব রেখেছিলেন। লকডাউনের সময় মা হওয়া ও সন্তানের জন্ম দেওয়া প্রসঙ্গে মধুবনী জানিয়েছিলেন, ‘২০২০ বছরটা আমাদের সকলের কাছেই নেগেটিভ বছর। আমি আর রাজা  ভেবেছিলাম, এই নেগেটিভিটিটাকে পজিটিভিটিতে নিয়ে যাব কীভাবে, আমাদের মনে হয়েছিল নেগেটিভিটিটাকে পজিটিভিটিতে টার্ন ওভার করার এটাই সেরা সময়। কাজের তেমন প্রেশার নেই। লকডাউনে কারও কাজ ছিল না। দুজনেই সুন্দর করে সময় দিতে পারব। যে যার মতো সিরিয়ালে কাজ করলেও, আমরা একসঙ্গে যাত্রা করি। সেটা খুবই সময় সাপেক্ষ। এই সময়টা কাজ না থাকায়, নিজেকে অনেক বেশি সময় দিতে পারব। আমি ২৪ বছর বয়সে বিয়ে করেছিলাম। ৪-৫ বছরের মধ্যে প্ল্যান করব ভেবেছিলাম। ভগবানের আশীর্বাদে আমার জন্মমাস আগস্টেই খবর পেয়েছি’। 

এখন কেশব ও মধুবনী দুজনের জীবন জুড়ে শুধুই কেশব। কাজও রয়েছে। তবে সব কিছুর আগে কেশব। এর থেকে বড় কিছু নয়।